তল্লা মসজিদে ঝুলছে তালা, বিপাকে মুসল্লিরা!

0 Shares

নারায়ণগঞ্জের পশ্চিম তল্লা বাইতুস সালাত জামে মসজিদে বিস্ফোরণে গত ১০ দিন বন্ধ রয়েছে। সেখানে মুসল্লিদের আনাগোনা নেই। জামাতে সালাত আদায় বন্ধ রয়েছে। তবে দিনের বেশিরভাগ সময় উুঁকি-ঝুঁকি দিচ্ছেন উৎসুক জনতা। আসছেন বিভিন্ন তদন্ত সংস্থার লোকজন। মসজিদ ঘিরে আশপাশে শোকের ছায়া বিরাজ করছে।

সরেজমিনে জানা গেছে, মসজিদে সালাত আদায় বন্ধ থাকায় ওই এলাকার মুসল্লিরা বিভিন্ন মসজিদে গিয়ে নামাজে আদায় করছেন। বাসা থেকে মসজিদের দূরত্ব বেশি হওয়ায় এতে বিপাকে পড়ছেন অনেকে। দ্রুত মসজিদে বিদ্যুৎ সংযোগ স্থাপন ও আনুষাঙ্গিক কার্যক্রম সম্পন্নসহ নামাজের উপযোগী করে খুলে দিতে দাবি জানান স্থানীয়রা। শুক্রবারের মধ্যে মসজিদ খুলে দেয়ার জন্য জেলা প্রশাসনের তদন্ত কমিটির কাছে আবেদন করেছে বলে জানান মসজিদ পরিচালনা কমিটির সভাপতি আব্দুল গফুর মেম্বার।

মসজিদের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা পুলিশ সদস্যরা বলছেন, ক্রাইমসিন থাকায় এখানে অনেক আলামত আছে। তাই এখানে সবার প্রবেশ বন্ধ রাখা হয়েছে। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা পেলে মসজিদটি উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে।

এলাকার মুসল্লিরা জানান, মসজিদে বিস্ফোরণের কারণে গত ১০ দিন যাবত মসজিদটি বন্ধ রয়েছে। এ কারণে বেশি দূরে গিয়ে নামাজ আদায়ে সমস্যা হচ্ছে। বিশেষ করে ফজর নামাজের সময় বয়স্ক ও ছোটদের সমস্যা হচ্ছে। আগামী শুক্রবারের মধ্যে খুলে দেওয়ার জন্য অনুরোধ জানান তল্লা বড় মসজিদের ইমাম মাওলানা মুফতি ওমর ফারুক। তিনি বলেন তদন্তে প্রয়োজনে নিচতলা তলা বন্ধ রাখলেও দ্বিতীয় ও তৃতীয় তলায় সমজিদের কার্যক্রম চালানো যেতে পারে।

উল্লেখ্য, গত ৪ সেপ্টেম্বর নারায়ণগঞ্জের পশ্চিম তল্লা বাইতুস সালাত জামে মসজিদে এশার নামাজের সময় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় ৩৭ জন দগ্ধকে শেখ হাসিনা বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ৩১ জন মৃত্যুবরণ করেন। একজন সুস্থ্য হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। বাকিরা আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন।

0 Shares