‘ভারতে ‘ত্রুটিপূর্ণ’ গোলাবারুদে ২৭ জওয়ানে মৃত্যু; ক্ষয়ক্ষতি ৯৬০ কোটি টাকা’

0 Shares

‘ভারতে ‘ত্রুটিপূর্ণ’ গোলাবারুদে ২৭ জওয়ানে মৃত্যু; ক্ষয়ক্ষতি ৯৬০ কোটি টাকা’। ২০১৪ সাল থেকে ‘ত্রুটিপূর্ণ’ গোলাবারুদে নষ্ট হয়েছে প্রায় ৯৬০ কোটি টাকা। মৃত্যু হয়েছে ২৭ জন জওয়ানের। এক অভ্যন্তরীণ সমীক্ষার পর এমনটাই জানিয়েছে ভারতীয় সেনাবাহিনী।

সেনাবাহিনী জানিয়েছে, ‘Ordnance Factory Board’-এর তৈরি গুলি, গোলা ও বোমায় থাকা ত্রুটির খেসারত দিতে হয়েছে ফৌজকে। ২০১৪ থেকে ২০১৯ পর্যন্ত, অর্থাৎ বিগত প্রায় পাঁচ বছরে বিভিন্ন হাতিয়ারের গুলি ও বোমায় ত্রুটি থাকায় প্রায় ৪০০টি দুর্ঘটনা ঘটেছে।

এর ফলে মৃত্যু হয়েছে ২৭ জন জওয়ানের। আর্থিক দিক থেকে, ওই সময়সীমায় প্রায় ৬৫৮ কোটি টাকার ত্রুটিপূর্ণ বুলেট নষ্ট করে সেনা। ২০১৬ সালে মহারাষ্ট্রের পুলগাওঁয়ে একটি মাইন বিস্ফোরণ ঘটে। তদন্তে জানা যায় সেটিতে ত্রুটি ছিল।

তারপর প্রায় ৩০৩ কোটি টাকার মাইন নষ্ট করে বাহিনী। বিগত কয়েক বছরে যে পরিমাণের টাকা নষ্ট হয়েছে তাতে ১৫৫ মিলিমিটার মিডিয়াম রেঞ্জ আরটিলারি গান বা মাঝারি পাল্লার ১০০টি কামান কেনা যেত।

এদিকে, সেনার রিপোর্টে রীতিমতো প্রশ্নের মুখ পড়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ‘মেক ইন ইন্ডিয়া’ উদ্যোগ। প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে স্বাবলম্বী হওয়ার ভারতের চেষ্টায় অন্যতম অবদান OFB বা গোলাবারুদ নির্মাণকারী কারখানাগুলির। প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের আওতায় কাজ করা এই OFB গুলির তৈরি গোলাবারুদের মান নিয়ে এর আগেও প্রশ্ন উঠেছে। এবার খোদ সেনাবাহিনী ক্ষোভপ্রকাশ করায় রীতিমতো জটিল হয়েছে পরিস্থিতি।

উল্লেখ্য, শীতের মরশুম আসছে। এদিকে পূর্ব লাদাখ সীমান্তে চোখ রাঙাচ্ছে লালফৌজ। তীব্র ঠান্ডায় তাদের মোকাবিলা করতে কোমর বেঁধে তৈরি হচ্ছে ভারতীয় সেনা। সাড়ে ১৪ হাজার ফুট উচ্চতায় চরম প্রতিকূল পরিস্থিতিতে ভারতীয় সেনা যুদ্ধের জন্য মোতায়েন করছে ট্যাঙ্ক, যুদ্ধযান। এমনকী, এই সামরিক সজ্জা নিয়ে মহড়াও শুরু হয়ে গিয়েছে। এহেন সময়ে যুদ্ধের রসদের মান নিয়ে প্রশ্ন ওঠায় চঞ্চল্য ছড়িয়েছে প্রতিরক্ষা মহলে। সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন

0 Shares